শুক্রবার,২০ অক্টোবর ২০১৭
হোম / বিবিধ / পোষা প্রাণীর যত্ন-আত্তি
১০/০৫/২০১৭

পোষা প্রাণীর যত্ন-আত্তি

-

আজকাল প্রায় কমবেশি সবার বাসাতেই পোষা প্রাণী রয়েছে। কেউ কুকুর পছন্দ করেন, কেউ-বা বেড়াল। আবার কেউ কেউ পছন্দ করেন পাখি বা মাছ। পছন্দ ভিন্ন হলেও বাসায় প্রথম পোষা প্রাণী নিয়ে আসার ব্যাপারে প্রাণী প্রেমিকদের আনন্দ আর কৌতূহলের সীমা থাকে না। আনন্দের বশবর্তী হয়ে অনেকেই মাথায় রাখেন না যে বাসায় একটি প্রাণী নিয়ে এসে সেটিকে শুধু খেতে দিলে ও সেটির সঙ্গে খেলা করলেই হবে না। যদিও পোষা প্রাণীটিকে সময় দেওয়া খুবই গুরুত্বপূর্ণ একটি কাজ; পাশাপাশি বাসায় পোষা প্রাণী নিয়ে আসার আগে আরও কিছু বিষয় মাথায় রাখা খুব জরুরি।

বাসায় পোষা প্রাণী রাখা একটি বড় দায়িত্ব
বাসায় একটি প্রাণী নিয়ে আসার আগে অবশ্যই আপনার পারিপার্শ্বিক দিকগুলো বিবেচনা করে দেখতে হবে। বাসায় পোষা প্রাণী একটি বড় দায়িত্ব। নিজেকে প্রশ্ন করুন আপনি এই দায়িত্ব নিতে প্রস্তুত কিনা। পোষা প্রাণী লালন পালন করা অনেকটা ছোট বাচ্চা বড় করার মতোই। আপনি যদি আপনার প্রাণীটির ঠিকমতো খেয়াল রাখতে না পারেন তবে তা আপনার ও আপনার প্রাণীটির জন্য খুব কষ্টদায়ক হবে। তাই হুট করে বাসায় কোনো প্রাণী আনা উচিত হবে না।

পরিবারের কথা মাথায় রাখুন
আপনি যেই প্রাণীটি পোষা পছন্দ করবেন তা আপনার পরিবারের অন্য সদস্যদের ভালো নাও লাগতে পারে। অনেকের বিড়াল অথবা কুকুরের লোমে এলার্জিও থাকে। তাই আপনি যখন বাসায় থাকবেন না তখন খুব সহজেই আপনার আদরের প্রাণীটি অবহেলার শিকার হতে পারে। তাই বাসায় পোষা প্রাণী আনার আগে পরিবারের আর সবার সঙ্গে পরামর্শ করে নিন। আপনি অবশ্যই চাইবেন না যে, আপনার অনুপস্থিতিতে প্রাণীটি একাকিত্ব অনুভব করুক। ভালোবাসা ও আদরের অভাবে প্রাণীটি মনমরাও হয়ে যেতে পারে।

সময় দিন
পোষা প্রাণীটিকে সময় দেওয়া খুবই গুরুত্বপূর্ণ একটি কাজ। বিশেষ করে আপনি যদি একটি কুকুর পালতে চান তবে সেটিকে সময় না দিলে তা মনমরা হয়ে পড়ে, আবার অনেক সময় এটাও দেখা যায় যে, প্রাণীটি অকালেই মারা গেছে। নিজেকে প্রশ্ন করুন আপনি দৈনন্দিন কার্যক্রমের পাশাপাশি পোষা প্রাণীটিকে সময় দিতে পারবেন কি না। যদি বাসায় আপনি ছাড়া আর কেউ না থাকে এবং দিনের বেশিরভাগ সময় আপনি যদি ব্যস্ত বা বাইরে থাকেন তবে বাসায় কোনো পোষা প্রাণী না আনাই উত্তম। তবে আপনার পরিবারের মানুষগুলো যদি প্রাণীটির যত্ন নিতে পারে তবে বাসায় পোষা প্রাণী নিয়ে আসতে পারেন।

ব্যাকআপ পরিকল্পনা রাখুন
অনেক সময় দেখা যায় আপনি সপরিবারে বেশ কিছু দিনের জন্য বাইরে বেড়াতে যাচ্ছেন; কিন্তু বাসায় আপনার আদরের প্রাণীটিকে দেখাশুনা করার জন্য বা খাবার দেওয়ার জন্য কেউ থাকছে না। এতে আপনি যেমন বাসার বাইরে গিয়ে দুশ্চিন্তায় থাকবেন তেমনিভাবে আপনার পোষা প্রাণীটি বাসায় একাকিত্বে ভুগবে। আপনার অনুপস্থিতে বাসার পোষা প্রাণীটিকে কেউ দেখেশুনে রাখতে পারবে কিনা সেটি মাথায় রেখেই পোষা প্রাণী বাসায় নিয়ে আসা উচিত।

আর্থিক বিষয়টি ভেবে দেখুন
পোষা প্রাণীটিকে শুধু সময় দিলেই চলবে না চাই সঠিক পরিচর্যা ও নিয়মিত প্রাণীর ডাক্তার দেখানো। এগুলোতে আপনাকে বেশ ভাল অঙ্কের টাকা গুনতে হবে। পাশাপাশি প্রাণীটির খাবার ও ভ্যাক্সিনেশনের খরচ তো রয়েছেই। কুকুর অথবা বেড়াল রাখতে চাইলে তাদের জন্য বিভিন্ন খেলনাও কিনতে হবে। এই খরচগুলো আপনি বহন করতে পারবেন কি না ভেবে দেখুন।

বাসায় একটি পোষা প্রাণী আপনার একাকিত্ব কাটাতে যেমন সাহায্য করবে ঠিক সেভাবে আপনার দিনগুলো ছোট ছোট আনন্দে ভরিয়ে দিবে। পোষা প্রাণীর পেছনে সময় দিতে হলেও দিন শেষে এদের নিষ্পাপ আচরন আপনার মুখে হাসি ফুটিয়ে তুলবে।

- রুবায়েত মহিউদ্দিন
ছবিঃ সালেক বিন তাহের